জনতা টাওয়ারে দেশের প্রথম পূর্ণাঙ্গ স্মার্ট অফিস চালু করলো সিসটেক

0

দেশের প্রথম পূর্ণাঙ্গ স্মার্ট অফিস হিসেবে যাত্রা শুরু করেছে রাজধানীর কারওয়ান বাজারস্থ সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক জনতা টাওয়ারে সিসটেক ডিজিটাল লিমিটেড এর শাখা অফিস।

মঙ্গলবার বিকেলে এই স্মার্ট অফিসের উদ্বোধন করেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার সিসটেক ডিজিটাল লিমিটেডের এই স্মার্ট অফিস সেবার ভূয়সী প্রশংসা করে বলেন, আমাদের দেশীয় প্রতিষ্ঠান অনেক আগেই সফটওয়্যার সেবা রপ্তানিতে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে অনেক সুনাম অর্জন করেছে। বিগত কয়েক বছর ধরে বাংলাদেশ থেকে আমরা হার্ডওয়্যার তৈরির ক্ষেত্রেও এগিয়ে যাচ্ছি। অচিরেই আমরা হার্ডওয়্যার রপ্তানিতেও সুনাম অর্জন করতে সক্ষম হবো। এই ধরনের অফিস সিসটেক এর কাজের পরিবেশকে উন্নত করার পাশাপাশি সার্বিকভাবে কাজের মান, দক্ষতা, মেধা ও মননশীলতা বৃদ্ধিতে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

সিসটেক ডিজিটাল লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এম রাশিদুল হাসান বলেন, শত প্রতিকূলতার মাঝেও বাংলাদেশের মতো একটি উন্নয়নশীল দেশে এই ধরনের স্মার্ট অফিস সেবা চালু করতে পেরে আমরা আনন্দিত। প্রযুক্তির উৎকর্ষতাকে কাজে লাগিয়ে এই খাতে আমাদের গবেষণা ও উদ্ভাবন ভবিষ্যতেও অব্যাহত থাকবে।

স্মার্ট অফিস হলো ইন্টারনেট অব থিংস (আইওটি) প্রযুক্তি ও সেবাকে কাজে লাগিয়ে বুদ্ধিমান ও চৌকস পরিবেশে কাজের উপযোগী একটি অফিস, যেখানে সবকিছুই নিয়ন্ত্রিত হয়ে চৌকস উপায়ে। অফিসের বাতি, এসি, ডেস্ক, ভ্যানিশিং ব্লাইন্ড, স্ক্রিন, নানা ধরনের যন্ত্রপাতিসহ সবকিছুই নিয়ন্ত্রিত হয় আধুনিক ইন্টারনেট নিয়ন্ত্রিত উপায়ে। প্রায় এক বছর ধরে সিসটেক ডিজিটাল লিমিটেড বেশ কিছু বিদেশি স্মার্ট ডিভাইস উৎপাদনকারী কোম্পানিকে বাংলাদেশ থেকে সফটওয়্যার ও প্রযুক্তি সেবা দিয়ে আসছে। তারই ধারাবাহিকতায় ঐ কোম্পানিগুলোর সাথে দেশীয় সফটওয়্যার ও প্রযুক্তির সংমিশ্রণে সিসটেক তাদের বাংলাদেশ, যুক্তরাজ্য ও জাপান অফিস থেকে সম্পূর্ণ স্মার্ট অফিস অটোমেশন সেবা চালু করতে যাচ্ছে। যার একটি ব্যবহারিক বাস্তবায়ন করা হয়েছে সিসটেক ডিজিটালের জনতা টাওয়ার সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক অফিসে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন সিসটেক ডিজিটাল লিমিটেডের চেয়ারম্যান নাহিদ মওলা মৌরী, বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হোসনে আরা বেগম এনডিসি, হাই-টেক পার্ক পরিচালক মোঃ শফিকুল ইসলাম, উইটসা’র সাধারণ সম্পাদক ড. জেমস এইচ. প্ইুসান্ট, অ্যাসোসিও’র সাবেক সভাপতি আব্দুল্লাহ এইচ কাফি, বেসিসের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি এ তৌহিদ, বর্তমান সভাপতি সৈয়দ আলমাস কবির, বিসিএস সভাপতি শাহিদ উল মুনীর, বাক্কো সভাপতি ওয়াহিদুর রহমান শরিফ, মহাসচিব তৌহিদ হোসাইন, আপডেট সল্যুশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক টিআইএম নুরুল কবির, এমআরপি প্রজেক্টের সাবেক প্রকল্প পরিচালক ব্রিগ্রেডিয়ার জেনারেল (অবঃ) রাফায়েত উল্লাহ, ইক্যাবের মহাসচিব আব্দুল ওয়াহেদ তমাল, বিআইজেএফ সভাপতি মোজাহিদুল ইসলাম ঢেউ প্রমুখ

মন্তব্য করুন

টি মন্তব্য

Share.

Comments are closed.